ঢাকা বুধবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২২ ইং | ৬ মাঘ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

টাঙ্গাইলের মধুপুরে ঐতিহ্যবাহী ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত

প্রকাশিত: ৭ জানুয়ারী ২০২২, রাত ১০ঃ৩৩

টাঙ্গাইলের মধুপুরে শত বছরের গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যবাহী ঘোড়দৌড় প্রতিযোগীতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। শুক্রবার (৭ জানুয়ারী) সকালে আকাশী বঙ্গবন্ধু ক্লাবের উদ্যোগে উপজেলার দামপাড়া ও আকাশী গ্রামের মধ্যস্থল কুমড়া বিলে ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়।

বঙ্গবন্ধু ক্লাবের ১৩ তম ঘোড়দৌড় প্রতিযোগীতায় জামালপুর, মাদারগঞ্জ, টাঙ্গাইল, ময়মনসিংহ, কিশোরগঞ্জ, নরসিংদি, হবিগঞ্জ, গাজীপুরসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে আসা ৩০টি ঘোড়া প্রতিযোগীতায় অংশ নেয়। শীত উপেক্ষা করে সকাল থেকেই এই ঘোড়দৌড় উপভোগ করার জন্য আসতে থাকেন শিশু বৃদ্ধ, নারী পুরুষসহ বিভিন্ন শ্রেণী পেশার উৎসুক জনতা। ঘোড়দৌড় শুরু হওয়ার আগেই মাঠ কানায় কানায় ভরে যায় দর্শকে। দৌড় শুরু হলে মাঠের চারপাশ থেকে চলে আসে উৎসুক দর্শকের উল্লাস। ১৩তম ঘোড়দৌড় প্রতিযোগীতা উদ্বোধন করেন ওয়াল্টন হাইটেক ইন্ডাষ্ট্রিজ লিমিটেড এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর এস এম জাহিদ হাসান।

বঙ্গবন্ধু ক্লাবের সভাপতি আব্দুল বারী বাবুলের সভাপতিত্বে ্এবং মধুপুর ্উপজেলা আওয়ামী লীগের উপ-প্রচার সম্পাদক মোহসীনুল কবিরের উপস্থাপনায় এই ঘোড়দৌড় প্রতিযোগীতায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ছরোয়ার আলম খান, বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শামীমা ইয়াসমীন, মধুপুর পৌর মেয়র সিদ্দিক হোসেন খান, ভাইস চেয়ারম্যান শরীফ আহমেদ নাসির, ঘোড়দৌড় বাস্তবায়ন কমিটির আহবায়ক আনিসুর রহমান ফনু। এছাড়াও মধুপুরের বিভিন্ন শ্রেণী পেশার অতিথিরা উপস্থিত ছিলেন।

আয়োজকরা জানান, বিভিন্ন দুর দুরান্ত থেকে ঘোড়ার মালিকরা তিন দিন আগে থেকে এখানে ঘোড়া নিয়ে এসেছেন। প্রতিযোগিতায় সাতটি গ্রুপে ১ম ২য় ও ৩য় স্থান অধিকারীদের পুরস্কার প্রদান করা হয়।

ঘোড়দৌড় দেখতে আসা দর্শকরা জানান, প্রতিবছর আকাশী গ্রামের এ ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতা দেখেছি। এখন আর কোথাও এ ঘোড়দৌড় খেলা হয় না। এই ঘোড়দৌড় দেখতে খুবই ভাল লাগছে। ঘোড়দৌড় প্রতিযোগিতাকে কেন্দ্র করে কুমড়া বিলে এক সপ্তাহ আগে থেকেই শুরু হয় মেলা। এমেলায় নারী-শিশু কিশোররা কেনা-কাটা করে থাকে। বাড়ী বাড়ী দুর দুরান্তের আত্মীয় স্বজনরা আসেন। জমে উঠে পিঠ-পুলির উৎসবের মত।